• বুধবার, ২৭ অক্টোবর ২০২১, ১২:৪৯ অপরাহ্ন
শিরোনাম
রাজসম্মান-ধন সব ছেড়ে ভালোবাসার মানুষকে বিয়ে রংপুর জেলা প্রশাসনের সহায়তায় বিক্রি হওয়া শিশুকে ফেরত পেল পরিবার নাচোলে বিদ্যুৎ এর ৪০০/১৩২ কেভির সাবস্টেশন নির্মানের ফলে জলাবদ্ধতা সৃষ্টি, প্রতিকার চেয়ে ইউএনও বরাবার আবেদন গোমস্তাপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের নার্সের বিরুদ্ধে অশালীন আচরণের অভিযোগ নাচোলে আওয়ামী লীগের বর্ধিত সভা অনুষ্ঠিত পটুয়াখালীতে ভোক্তা অধিকারের অভিযান : জরিমানা ৮১ হাজার টাকা। নোয়াখালীতে অবৈধ সিএনজি-রিকশা স্ট্যান্ড উচ্ছেদ করায় ২ আনসার সদস্যকে ছুরিকাঘাত করেছে চাঁদাবাজরা গোমস্তাপুরে চেয়ারম্যান পদে ২ জন ও সদস্য পদে ১৫ জনের মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার  গোমস্তাপুর বিভিন্ন সম্প্রদায়ের সম্প্রীতি সভা অনুষ্ঠিত গোমস্তাপুরে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় জয়ী হচ্ছেন ৩ ইউপি সদস্য 



তানোরে ২৬ বছর পর নৌকা বিজয়ের প্রধান নায়ক ছিলেন পাপুল সরকার

Reporter Name / ২৪ Time View
Update : বুধবার, ১৭ ফেব্রুয়ারী, ২০২১



রাশাহী বিভাগীয় প্রধান সোহানুল হক পারভেজ : রাজশাহীর তানোর পৌর সভা ২৬ বছর পর নৌকা বিজয়ের মুল নায়ক ছিলেন রাজশাহী জেলা ছাত্রলীগ সাবেক যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক তুখোড় বক্তা রনাঙ্গনে রাজপথের সাহসী ও লড়াকু মুজিক সৈনিক রাকিবুল হাসান সরকার পাপুল।

তিনি, তানোর পৌর নির্বাচনে নির্বাচন পরিচালনা কমিটির আহবায়ক ছিলেন। এ নির্বাচনে তিনি ভোট যুদ্ধের সামনের কাতারের প্রধানের দাযিত্বে থেকে ভোটের মাঠে নেত্রীত্ব দিয়ে নৌকার বিজয় ঘটিয়েছেন। এক সময়ে যুবকদের হৃদয়ের স্পন্দনে থাকা পৌর নির্বাচনে এই নেতার ভুমিকা স্বর্ণাক্ষরে লিখারমত।

দায়িত্বশীল ব্যক্তিত্বের অধিকারী বিনয়ী ভুমিকার পজেটিভ ও সাদা মনের উদীয়মান বাংলাদেশ আ’ লীগ তানোর উপজেলা শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক রাকিবুল হাসান সরকার পাপুলের নেত্রীত্ব ও ভুমিকায় নির্বাচনে বিপুল ভোটে নৌকার বিজয় ঘটা নিয়ে রাজনীতির উপর মহলসহ স্থানীয় পর্যায়ের রাজনীতিতে আলোচনার ঝড় উঠেছে।

এলাকাবাসী ও দলীয় নেতা কর্মি ও সমর্থকদের সাথে কথা বলে জানা গেছে, তানোর পৌর সভা প্রতিষ্ঠার ২৬ বছরেও আ’ লীগ তাদের দখলে নিতে ব্যার্থ ছিলেন। শুরু থেকেই পৌর সভাটিতে বিএনপি মনোনীত মেয়র প্রার্থী নির্বাচিত হয়েছেন।

এবার পৌর সভাটি দখলে নিতে গত নির্বাচনে ১৩ ভোটে পরাজিত তানোর পৌর আ’ লীগ সভাপতি নিপিড়িত ত্যাগী নেতা হিসেবে পরিচিত ইমরুল হককে নিয়ে পৌর সভায় নৌকার বিজয়ের লড়াইয়ে নেমে নির্বাচন পরিচালনা কমিটির আহবাকের দায়িত্ব নেন তিনি।

বুদ্ধিমত্তার সাথে বিরোধীদের উষ্কানীতেও বিনয়ী ভুমিকায় সতর্কতার সাথে ভোটারদের মাঝে বিনয়ের সাথে ভালোবাসা দিয়ে উন্নয়নের বার্তা পৌছে দিয়ে ভোট ভিক্ষার প্রধান ভিক্ষক হয়ে ভোট প্রার্থনা করেন তিন।

নীতিতে অটল থাকা দুরদর্শীতা পূর্ণ তানোর উপজেলা আ’ লীগ বর্তমান সাংগঠনিক সম্পাদক নৌকাকে প্রায় সাড়ে ৫ হাজার ভোটের ব্যবধানে বিজয় এনে দিয়েছেন।

পজেটিভ মনোভাবের এই সাবেক ছাত্র নেতা কৌশলে বীর মুক্তি যোদ্ধা, অবসর প্রাপ্ত সেনা সদস্য, শিক্ষকসহ বিভিন্ন শ্রেণীর পেশার ব্যক্তিদের সাথে বেশ কয়েকজন ছাত্রলীগ সাবেক সভাপতি সম্পাদকসহ পৌর যু্বলীগ সভাপতি সম্পাদককে নিয়ে শক্তিশালী নির্বাচন পরিচালনা কমিটি গঠন করেন।

তানোর পৌর আ’ লীগ সভাপতি আবুল কালাম আজাদ প্রদীব সরকারকে উপদেষ্টাসহ সার্বিক সহযোগীতা ও প্রধান পৃষ্টপোষকের ভুমিকায় তানোর উপজেলা আ’ লীগ সভাপতি গোলাম রাব্বানী ও তানোর উপজেলা আ’ লীগ সাধারণ সম্পাদক আব্দুল্লাহ আল মামুনকে রেখে তিনি লড়েছেন ভোট যুদ্ধে ভোটের মাঠে।

এ ভোট যুদ্ধে ধানের শীষের শক্তিশালী প্রার্থী তানোর উপজেলা বিএনপির সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও বর্তমান মিজানুর রহমান মিজানকে বিপুল ভোটে পরাজিত করেন। তিনি তার সঙ্গিয়ত যোদ্ধাদের ভোটের মাঠে শান্ত থাকার আহবান জানিয়ে উন্নয়নের বার্তা দিয়ে ভোট ভিক্ষার যুদ্ধে সকলেরই সহযোগীতার পাশাপাশি সতস্পূর্ত অংশ গ্রহন ও দায়িত্বশীল ভুমিকায় ঐক্যবদ্ধ ভাবে পাশে পেয়েছেন।

তানোর পৌর বাসীর অভিমত, ২৬ বছরের বিএনপি দুর্গ তানোর পৌর সভায় নৌকার বিজয়ের মুল নায়ক ছিলেন রাজশাহী জেলা ছাত্রলীহ সাবেক যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক ও বর্তমান তানোর উপজেলা আ’ লীগ সাংগঠনিক সম্পাদক পাপুল সরকার।

দলীয় নেতা কর্মি ও সমর্থকদের ভাষ্যমতে, ৪ দলীয় সরকারের আমলে নিপিড়িত ও নির্যাতিত হওয়া রাজপথে সামনের কাতারে থেকে লড়াই সংগ্রাম করা এই উদীয়মান তরুন নেতাকে বর্তমান সরকার ক্ষমতায় আসার পর অন্যদেরমত কন্ঠাষা করে রাখা হয়েছিল।

পরে তিনি তানোর আব্দুল করিম সরকার সরকারী কলেজে শিক্ষকতা শুরু করেন। তিনি জাতীর পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শ বুকে ধারণ করে রাজনীতিতে অটল থেকে প্রধান মন্ত্রীর সকল উন্নয়ন কার্যক্রমককে স্বাগত জানানো ছাত্রলীগের সাবেক নেতা রাজনীতির মাঠে নিজের দুরদর্শীতার পরিচয় দিয়ে নৌকাকে বিজয়ী করায় উপর মহলের রাজনীতিবিদদের মাঝে আলোচনার ঝড় সৃষ্টি করেছেন।

রাশাহী বিভাগীয় প্রধান সোহানুল হক পারভেজ : রাজশাহীর তানোর পৌর সভা ২৬ বছর পর নৌকা বিজয়ের মুল নায়ক ছিলেন রাজশাহী জেলা ছাত্রলীগ সাবেক যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক তুখোড় বক্তা রনাঙ্গনে রাজপথের সাহসী ও লড়াকু মুজিক সৈনিক রাকিবুল হাসান সরকার পাপুল।

তিনি, তানোর পৌর নির্বাচনে নির্বাচন পরিচালনা কমিটির আহবায়ক ছিলেন। এ নির্বাচনে তিনি ভোট যুদ্ধের সামনের কাতারের প্রধানের দাযিত্বে থেকে ভোটের মাঠে নেত্রীত্ব দিয়ে নৌকার বিজয় ঘটিয়েছেন। এক সময়ে যুবকদের হৃদয়ের স্পন্দনে থাকা পৌর নির্বাচনে এই নেতার ভুমিকা স্বর্ণাক্ষরে লিখারমত।

দায়িত্বশীল ব্যক্তিত্বের অধিকারী বিনয়ী ভুমিকার পজেটিভ ও সাদা মনের উদীয়মান বাংলাদেশ আ’ লীগ তানোর উপজেলা শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক রাকিবুল হাসান সরকার পাপুলের নেত্রীত্ব ও ভুমিকায় নির্বাচনে বিপুল ভোটে নৌকার বিজয় ঘটা নিয়ে রাজনীতির উপর মহলসহ স্থানীয় পর্যায়ের রাজনীতিতে আলোচনার ঝড় উঠেছে।

এলাকাবাসী ও দলীয় নেতা কর্মি ও সমর্থকদের সাথে কথা বলে জানা গেছে, তানোর পৌর সভা প্রতিষ্ঠার ২৬ বছরেও আ’ লীগ তাদের দখলে নিতে ব্যার্থ ছিলেন। শুরু থেকেই পৌর সভাটিতে বিএনপি মনোনীত মেয়র প্রার্থী নির্বাচিত হয়েছেন।

এবার পৌর সভাটি দখলে নিতে গত নির্বাচনে ১৩ ভোটে পরাজিত তানোর পৌর আ’ লীগ সভাপতি নিপিড়িত ত্যাগী নেতা হিসেবে পরিচিত ইমরুল হককে নিয়ে পৌর সভায় নৌকার বিজয়ের লড়াইয়ে নেমে নির্বাচন পরিচালনা কমিটির আহবাকের দায়িত্ব নেন তিনি।

বুদ্ধিমত্তার সাথে বিরোধীদের উষ্কানীতেও বিনয়ী ভুমিকায় সতর্কতার সাথে ভোটারদের মাঝে বিনয়ের সাথে ভালোবাসা দিয়ে উন্নয়নের বার্তা পৌছে দিয়ে ভোট ভিক্ষার প্রধান ভিক্ষক হয়ে ভোট প্রার্থনা করেন তিন।

নীতিতে অটল থাকা দুরদর্শীতা পূর্ণ তানোর উপজেলা আ’ লীগ বর্তমান সাংগঠনিক সম্পাদক নৌকাকে প্রায় সাড়ে ৫ হাজার ভোটের ব্যবধানে বিজয় এনে দিয়েছেন।

পজেটিভ মনোভাবের এই সাবেক ছাত্র নেতা কৌশলে বীর মুক্তি যোদ্ধা, অবসর প্রাপ্ত সেনা সদস্য, শিক্ষকসহ বিভিন্ন শ্রেণীর পেশার ব্যক্তিদের সাথে বেশ কয়েকজন ছাত্রলীগ সাবেক সভাপতি সম্পাদকসহ পৌর যু্বলীগ সভাপতি সম্পাদককে নিয়ে শক্তিশালী নির্বাচন পরিচালনা কমিটি গঠন করেন।

তানোর পৌর আ’ লীগ সভাপতি আবুল কালাম আজাদ প্রদীব সরকারকে উপদেষ্টাসহ সার্বিক সহযোগীতা ও প্রধান পৃষ্টপোষকের ভুমিকায় তানোর উপজেলা আ’ লীগ সভাপতি গোলাম রাব্বানী ও তানোর উপজেলা আ’ লীগ সাধারণ সম্পাদক আব্দুল্লাহ আল মামুনকে রেখে তিনি লড়েছেন ভোট যুদ্ধে ভোটের মাঠে।

এ ভোট যুদ্ধে ধানের শীষের শক্তিশালী প্রার্থী তানোর উপজেলা বিএনপির সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও বর্তমান মিজানুর রহমান মিজানকে বিপুল ভোটে পরাজিত করেন। তিনি তার সঙ্গিয়ত যোদ্ধাদের ভোটের মাঠে শান্ত থাকার আহবান জানিয়ে উন্নয়নের বার্তা দিয়ে ভোট ভিক্ষার যুদ্ধে সকলেরই সহযোগীতার পাশাপাশি সতস্পূর্ত অংশ গ্রহন ও দায়িত্বশীল ভুমিকায় ঐক্যবদ্ধ ভাবে পাশে পেয়েছেন।

তানোর পৌর বাসীর অভিমত, ২৬ বছরের বিএনপি দুর্গ তানোর পৌর সভায় নৌকার বিজয়ের মুল নায়ক ছিলেন রাজশাহী জেলা ছাত্রলীহ সাবেক যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক ও বর্তমান তানোর উপজেলা আ’ লীগ সাংগঠনিক সম্পাদক পাপুল সরকার।

দলীয় নেতা কর্মি ও সমর্থকদের ভাষ্যমতে, ৪ দলীয় সরকারের আমলে নিপিড়িত ও নির্যাতিত হওয়া রাজপথে সামনের কাতারে থেকে লড়াই সংগ্রাম করা এই উদীয়মান তরুন নেতাকে বর্তমান সরকার ক্ষমতায় আসার পর অন্যদেরমত কন্ঠাষা করে রাখা হয়েছিল।

পরে তিনি তানোর আব্দুল করিম সরকার সরকারী কলেজে শিক্ষকতা শুরু করেন। তিনি জাতীর পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শ বুকে ধারণ করে রাজনীতিতে অটল থেকে প্রধান মন্ত্রীর সকল উন্নয়ন কার্যক্রমককে স্বাগত জানানো ছাত্রলীগের সাবেক নেতা রাজনীতির মাঠে নিজের দুরদর্শীতার পরিচয় দিয়ে নৌকাকে বিজয়ী করায় উপর মহলের রাজনীতিবিদদের মাঝে আলোচনার ঝড় সৃষ্টি করেছেন।




আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category